মঙ্গলবার, ০৫ নভেম্বর ২০১৯, ১১:২২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
নতুন ঠিকাদার দের দের কাজ করার সুযোগ করে দিতে হবে : প্রধানমন্ত্রী নাভারনে নার্গিস আক্তারের পায়ে বিশেষ কায়দায় থাকা গাঁজা উদ্ধার নলছিটিতে নির্মানাধীন বৈদ্যুতিক টাওয়ার থেকে পড়ে শ্রমিকের মৃত্যু পাবনার ঢালার চরে সর্বহারা নিহত ইয়াবা মামলায় বাপ-ছেলে সহ দুই মেয়ে জামাই পাঁচ দিনের রিমান্ডে সুশিক্ষিত জাতি গঠন করতে শিক্ষাকে অগ্রধিকার দিয়েছেন সফল প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা-এমপি এসএম শাহজাদা দুই লাখ মানুষ দেখবে আলোর মুখ,শুরু হচ্ছে পল্লী বিদ্যুতের কার্যক্রম শ্রেষ্ঠ আমতলীপাড়া কমিউনিটি ক্লিনিক, দেশ সেরা স্বাস্থ্যকর্মী জুলিয়া নাসরিন দখিনের জেলা পটুয়াখালী ও বরগুনাসহ পাবনার রূপপুরে র্নিমিত হচ্ছে দেশের বৃহৎ বিদ্যুৎকেন্দ্র- এমপি এসএম শাহজাদা বিয়ের প্রলোভন দিয়ে চাচাতো ভাই কর্তৃক চাচাতো বোনকে ধর্ষনের অভিযোগ

দুই লাখ মানুষ দেখবে আলোর মুখ,শুরু হচ্ছে পল্লী বিদ্যুতের কার্যক্রম

খবরের আলো :

 

 

হাবিবুর রহমান মাসুদ, পটুয়াখালী প্রতিনিধি :বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত হতে যাচ্ছে রাঙ্গাবলী উপজেলা। উপজেলার ১০৭ গ্রামের দুই লাখ মানুষকে আর থাকতে হবেনা বিদ্যুৎবিহীন। দেখবে আলোর মুখ। জতীয় গ্রিডের বিদ্যুতের সাথে রাঙ্গাবালী উপজেলাকে যুক্ত করার পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। এ মাসের মধ্যেই শুরু করা হবে বিদ্যুতের সংযোগ ও খুঁটি নির্মাণ কাজ। সাংবাদিকদের এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. সেলিম মিয়া।
পল্লী বিদ্যুতায়ন উপলক্ষে মঙ্গলবার দুপুরে রাঙ্গাবালী উপজেলা পরিষদে আলোচনা সভা ও মতবিনিময় সভা করা। সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পটুয়াখালী-৪ আসনের সংসদ সদস্য অধ্যক্ষ মহিব্বুর রহমান মহিব। এসময় বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. সেলিম মিয়া, পটুয়াখালী পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জেনারেল ম্যানেজার মনোহর কুমার বিশ^াস ও রাঙ্গাবালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো.মাশফাকুর রহমান। এসময় রাঙ্গাবালী উপজেলায় পল্লী বিদ্যুতের কার্যক্রম দ্রæত শুরু করার পদক্ষেপ নেয়া হয়।
জানা গেছে, ¬¬¬পটুয়াখালী জেলার সাগর বেষ্টিত ¬এই রাঙ্গাবালী উপজেলার বয়স আট বছর পেরিয়ে গেলেও দীর্ঘ এই সময়ে বিদ্যুৎ ও হাসপাতাল নির্মিত হয়নি। যার কারণে এখানকার লোকজন সরাদেশের তুলনায় অনেক পিছিয়ে ছিল। গত ৩১ ডিসেম্বর জাতীয় নির্বাচনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পরে অধ্যক্ষ মহিব্বুর রহমান মহিব ও রাঙ্গাবালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো.মাশফাকুর রহমান বিদ্যুৎ ও হাসাপাতাল নির্মাণের জন্য উদ্দ্যোগ গ্রহন করেন। এর পরে দীর্ঘ সময় চিঠি চালাচালি ও গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশের পর বিষয়টি নজের নেয় প্রধানমন্ত্রী। ইতোমধ্যে রাঙ্গাবালীতে পল্লী বিদ্যুতের একটি সাবস্টেশন করার লক্ষে জায়গা পরিদর্শন করেছেন বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের একটি টিম। এ মাসের মধ্যেই বিদ্যুতের পিলার ও সংযোগের কার্যক্রম শুরু করা হবে। ভোলা থেকে পিলার ও তারের মাধ্যমে রাঙ্গাবালী সাবস্টেশনে সংযোগ দেয়া হবে। রাঙ্গাবালী সাবস্টেশন থেকে উপজেলার চারটি ইউনিয়ন অর্থাৎ রাঙ্গাবালী সদর, ছোটবাইশদিয়া, বড়বাইশদিয়া ও মৌডুবীতে সংযোগ দেয়া হবে। এছাড়াও বাকি দুটি ইউনিয়নের মধ্যে চরমোন্তাজ ইউনিয়নে চরকাজল-চরবিশ^াস থেকে সংযোগ দেয়া হবে, আর চালিতাবুনিয়া ইউনিয়নে গলাচিপা উপজেলা থেকে সংযোগ দেয়া হবে। এখন থেকে শুরু করে ২০২০ সালের মধ্যে কাজ শেষ হবে বলে জানিয়েছন পল্লী বিদ্যুৎ পর্তৃপক্ষ।
পটুয়াখালী পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জেনারেল ম্যানেজার মনোহর কুমার বিশ^াস জানান, চারদিকে নদী বেষ্টিত এই উপজেলাকে বিদ্যুতের আলোয় আলোকিত করার লক্ষে আমরা কার্যক্রম শুরু করেছি। ইতোমধ্যে বাংলাদেশ পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের একটি টিম সাবস্টেশনের যায়গা পরিদর্শন করেছেন। রাঙ্গাবালীতে বিদ্যুতের সংযোগ করতে এখন থেকে শুরু করে ২০২০ সাল পর্যন্ত সময় লাগবে। ২০২০ সালের মধ্যে রাঙ্গাবালী উপজেলার প্রতিটি ঘরে ঘরে বিদ্যুৎ পৌছে যাবে।।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com