বুধবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৯, ০৭:৩৭ পূর্বাহ্ন

চরের কৃষকরাই আমাদের সোনার মানুষ – ডিআইজি সফিকুল ইসলাম

খবরের আলো :

 

 

মোঃ ওমর ফারুক,  ভোলা  থে‌কে : ভোলা সদর উপজেলার রাজাপুর ইউনিয়নের মেঘনার বুকে জেগে উঠা ভোলার চরের বাসিন্দাদের খোঁজ খবর নিতে হঠাৎ করেই বরিশাল রেঞ্জ ডিআইজি সফিকুল ইসলাম মেঘনার বুকে গেছে ওঠা ভোলার চরে।
চর পরিদর্শনকালে ডিআইজি বলেন, চরের মানুষ গরিব, অসহায়, হতদরিদ্র কিন্তু তাদের মন অনেক বড় এই মানুষেরাই সোনার মানুষ।
চরের বসবাসকারী কৃষকদের সুখে দুঃখের কথাও শুনেন। এই বিস্তীর্ণ চরের বসবাসকারী এ সকল মানুষের নানা সমস্যার সম্মুখীন হতে হয় সব সময়ই। জলদস্যু ভূমিদস্যু সহ অনেক ধরনের বিপদের সম্মুখীন হয়ে জীবন যাপন করতে হয় এই ভোলার চরের মানুষের। এ সকল অভিযোগ নিয়ে বরিশাল রেঞ্জ ডিআইজি শফিকুল ইসলাম তাদের আশ্বাস দিয়ে বলেন ভূমিদস্যু জলদস্যুসহ সকল ধরনের অপরাধীকে শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনা হবে।

তিনি আরো বলেন, এই মাঠের মানুষগুলোই সোনার মানুষ, তাদের কষ্টের ফসলই আমরা বাজারে পাই।
এই চরের মানুষ যেন ভয়ভীতি দুর করে চাষাবাদ এবং গরু মহিষ পালন করতে পারে।পুলিশের পক্ষ থেকেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে, যাতে করে চরের মানুষ সুন্দর ভাবে নিরাপদে জীবন যাপন করতে পারে।

এ সময় চরের বাসিন্দারা মেহেন্দিগঞ্জের আলতাফ সরদারের ছেলে তারেক ও ভোলা রাজাপুরের রাছেল খা নামে দুইজনের বিরুদ্ধে অভিযোগ করলে ভোলার পুলিশ সুপার কে বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন।

সোমবার দুপুরে ভোলার রাজাপুর ইউনিয়নের ভোলার চর নামক জায়গায় পরিদর্শনে গিয়ে এসব কথা বলেন বরিশাল রেঞ্জ ডিআইজি সফিকুল ইসলাম।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন ভোলার পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার, সদর সার্কেল মহসিন, সদর থানার ওসি এনায়েত হোসেন, রাজাপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান খান, ইলিশা ফাঁড়ির ইনচার্জ শ্রী রতন শীলসহ সাংবাদিকবৃন্দ।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com