জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীর ক্ষণগণনা
৫৫দিন
:
১৯ঘণ্টা
:
৪৩মিনিট
:
৩৭সেকেন্ড

শনিবার, ০৬ জুন ২০২০, ০৮:৫৪ অপরাহ্ন

করোনা: খুলনা মেডিকেলে বন্ধ সাধারণ রোগের চিকিৎসা

শনিবার, ২৮ মার্চ :খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গত চারদিন ধরে বহির্বিভাগে চিকিৎসা সেবা বন্ধ রয়েছে। জরুরি বিভাগেও মিলছে না কাঙ্ক্ষিত সেবা। চিকিৎসা না পেয়ে সাধারণ মানুষ ফিরে যাচ্ছেন হতাশা নিয়ে। হাসপাতাল সংশ্লিষ্টরা বলছেন, মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শুধু করোনা রোগের চিকিৎসা দেয়ার ঘোষণায় অন্য সব রোগের চিকিৎসা বন্ধ রাখা হয়েছে।এদিকে, প্রতিশ্রুতি দিয়েও বেসরকারি হাসপাতালগুলোতে বিনামূল্যে চিকিৎসা না দেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

মাসুম বিল্লাহ সড়ক দুর্ঘটনায় আহত হয়ে সাতক্ষীরার আশাশুনী থেকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দশদিন যাবৎ চিকিৎসাধীন ছিলেন। গত চারদিন ধরে ডাক্তার না আসায় চিকিৎসা সেবা না পেয়ে স্বজনরা অচেতন মাসুম বিল্লাহকে ফিরিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন বাড়িতে।

একই চিত্র হাসপাতালের বহির্বিভাগেও। কোনো ডাক্তার নেই, তাই দূর দূরান্ত থেকে কষ্ট করে হাসপাতালে এসে ফিরে যাচ্ছেন অনেকে। দক্ষিণাঞ্চলের অন্যতম চিকিৎসা কেন্দ্রে কোনো ঘোষণা ছাড়াই চিকিৎসা সেবা বন্ধ হয়ে যাওয়ায় চরম দুর্ভোগে পড়েছেন সাধারণ মানুষ।

এদিকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শুধুমাত্র করোনা রোগীর চিকিৎসা দেয়ার ঘোষণা আসায় চিকিৎসকরাও রয়েছেন দ্বিধা-দ্বন্দ্বে। বিএমএ নেতারা বলছেন, এই হাসপাতালে সকল রোগীদের জন্য যেহেতু সরকারি অনেক সুযোগ সুবিধা রয়েছে তাই করোনা রোগীদের জন্য বিকল্প ব্যবস্থা করা উচিত।

বিএমএ খুলনার সাধারণ সম্পাদক ডা. মেহেদী নেওয়াজ বলেন, আমাদের সকল চিকিৎসককে পিপিই ব্যবহার করে করোনা রোগীদের জন্য ভিন্ন জায়গায় চিকিৎসা দেয়ার কথা বলছেন। এগুলো সরকারি-বেসরকারি হাসপাতাল, কারাগার, হোটেল কিংবা ভিন্ন কোনো জায়গা হতে পারে। অন্যদিকে হাসপাতাল পরিচালক দ্রুত বিষয়টি সমাধানের আশ্বাস দেন।
খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডা. এটিএম মঞ্জুর মোর্শেদ বলেন, অবস্থা বিবেচনা করে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, বহির্বিভাগে প্রতিদিন গড়ে ৩ হাজার রোগী চিকিৎসা সেবা নিয়ে থাকেন।সূত্র সময় নিউজ টিভি অনলাইন

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com