শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:১২ অপরাহ্ন

চমেক হাসপাতালে নার্সদের বিক্ষোভ

খবরের আলো :

 

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের গাইনি ওয়ার্ডে প্রায় ৩ ঘণ্টা সেবা বন্ধ রেখে বিক্ষোভ করেছেন নার্সরা। বুধবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে এক চিকিৎসকের সাথে বিতণ্ডার জের ধরে নার্সরা বিক্ষোভ শুরু করেন।

জানা গেছে, বুধবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে গাইনি ওয়ার্ডে এক রোগীর ইউরিন ব্যাগ পরিষ্কার করে তাকে প্যাড পরাচ্ছিলেন দুই সিস্টার। এ সময় ডা. শাহেনা আক্তার দাঁড়িয়ে দেখছিলেন। নার্সদের অভিযোগ, প্যাড পরানোর সময় ডাক্তার হঠাৎ করে সিস্টার বনানী রানীর গালে থাপ্পড় মারেন। তবে চিকিৎসকদের দাবি, ডাক্তার ওই নার্সকে বকা দিয়ে পিঠে ‘চাপড়’ দেন, থাপ্পড় মারার কোনো ঘটনা ঘটেনি।

এ ঘটনার পর ওয়ার্ডের নার্সরা সেবা বন্ধ রেখে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন। বেলা ১১টার দিকে হাসপাতালের প্রশাসনের সাথে বৈঠকে বসে ডিপ্লোমা নার্সেস অ্যাসোসিয়েশনের নেতাকর্মীরা। বৈঠক শেষে বেলা ১২টার দিকে তারা আবার কাজে যোগ দেয়।

চমেক হাসপাতাল ডিপ্লোমা নার্সেস অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক তপন দে বলেন, যদি সিস্টার কোন অন্যায় করে থাকেন তাহলে প্রশাসন সেটার বিচার করবে। ডাক্তার কেন মারধর করবেন? দোষীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া না হলে আমরা কর্মবিরতিতে যাব। বিক্ষোভ প্রদর্শন করলেও রোগীদের সেবা প্রদান আমরা বন্ধ করিনি।

ঘটনার বিষয়ে গাইনী ওয়ার্ডের প্রধান ডা. শাহানারা চৌধুরী বলেন, এক রোগীর ইউরিন ব্যাগের নল খোলার সময় তার কাপড় বুক পর্যন্ত তুলে ফেলেন ওই সিস্টার। তখন ওয়ার্ডে রাউন্ডে থাকা ডাক্তার এভাবে রোগীর প্রাইভেসি নষ্ট করার কারণ জানতে যান। এটা বলে তিনি সিস্টারের পিঠে চাপড় দিয়েছেন। এর বেশী কিছু না।

চমেক হাসপাতালের পরিচালক বিগ্রেডিয়ার জেনারেল মো. জালাল উদ্দিন বলেন, একজন চিকিৎসকের সাথে নার্সের একটু সমস্যা হয়েছে। অভিযোগ তদন্ত করে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com