শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৯:২৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
দাউদকান্দি সেতুর টোলে সাংবাদিকের গাড়ি ডাকাতি কোভিড মোকাবিলায় বাংলাদেশের দৃষ্টান্ত অনন্য : ডব্লিউএইচও আইজিপির সাথে বিএনপির প্রতিনিধি দলের বৈঠক অনুষ্ঠিত বদলগাছীতে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কৃষি জমিতে চলছে পুকুর খনন জান্নাত একাডেমী হাই স্কুলে শহীদ দিবস উদযাপন দোহারে মুজিববর্ষ উপলক্ষে ব্যাডমিন্টন টুর্নামেন্টের ফাইনাল অনুষ্ঠিত চাষের নতুন পদ্ধতি যন্ত্রের ব্যবহার বাড়বে কমবে সময়,শ্রম, ও খরচ – কৃষিমন্ত্রী  করনা মোকাবেলায় স্বর্ণপদক পেলেন ইউপি চেয়ারম্যান  আমিনুর রহমান আজ সৈয়দ মুহাম্মদ আহমদ উল্লাহ’র প্রথম মৃত্যুবার্ষিকী সাভারে ঝুলন্ত অবস্থায় অন্তঃসত্ত্বার মরদেহ উদ্ধার

টটেনহ্যামের বিপক্ষে বার্সার দারুণ জয়

খবরের আলো :

 

মেসির জোড়া গোলে টটেনহ্যাম হটস্পারকে তাদেরই মাঠে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লিগে জয়ধারা ধরে রাখলো বার্সেলোনা।

লন্ডনের ওয়েম্বলিতে ‘বি’ গ্রুপের ম্যাচটি ৪-২ গোলে জিতেছে কাতালান ক্লাবটি। ফিলিপে কৌতিনিয়ো গোলে বার্সেলোনা এগিয়ে যাওয়ার পর ব্যবধান বাড়ান ইভান রাকিতিচ।

গোলরক্ষকের মারাত্মক ভুলে ৯২ সেকেন্ডে গোল খেয়ে বসে টটেনহ্যাম। মেসির লম্বা করে বাড়ানো বল ধরে বাঁ দিক দিয়ে ডি-বক্সে ঢোকা জর্ডি আলবাকে ঠেকাতে ছুটে যান উগো লরিস, ফাঁকা হয়ে যায় পোস্ট। দ্রুত ডান দিকে কৌতিনিয়োকে পাস দেন আলবা। ২০ গজ দূর থেকে জোরালো শটে অনায়াসে গোলটি করেন ব্রাজিলিয়ান মিডফিল্ডার।

এরপর বেশ খানিকটা সময় ধরে দুদলের ফুটবলই ছিল অগোছালো। এরই মাঝে ২৮তম মিনিটে দারুণ ভলিতে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন রাকিটিচ।

এই গোলেও ভূমিকা ছিল মেসির। তার উঁচু করে বাড়ানো দারুণ বল ছোট ডি-বক্সের মুখে পেয়ে বাঁয়ে কৌতিনিয়োকে দেন সুয়ারেস। কৌতিনিয়ো বাড়ান রাকিতিচকে। আর ক্রোয়াট মিডফিল্ডারের ভলি পোস্টে লেগে জালে জড়ায়।

দ্বিতীয়ার্ধে প্রথম পাঁচ মিনিটের মধ্যে দুবার ভাগ্যের ফেরে গোলবঞ্চিত হন মেসি। ৫২তম মিনিটে দারুণ নৈপুণ্যে ব্যবধান কমান হ্যারি কেইন। বাঁ দিক দিয়ে ডি-বক্সে ঢুকে পর্তুগিজ ডিফেন্ডার নেলসন সেমেদোকে এক ঝটকায় ফেলে দিয়ে ডান পায়ের শটে গোলটি করেন এ ইংলিশ ফরোয়ার্ড।

৫৬তম মিনিটে গোলরক্ষক কিংবা পোস্ট, কিছুই বাধা হতে পারেনি মেসির সামনে। আলবাকে বাঁয়ে পাস দিয়ে দ্রুত ডি-বক্সে ঢুকে ফিরতি বল পেয়ে পোস্ট ঘেঁষে লক্ষ্যভেদ করেন আর্জেন্টাইন তারকা।

৬৬তম মিনিটে আবারও ব্যবধান কমিয়ে রোমাঞ্চকর শেষের আভাস দেন এরিক লামেলা। আর্জেন্টাইন মিডফিল্ডারের জোরালো শট ফরাসি সেন্টার-ব্যাক ক্লেমোঁ লংলের গায়ে লেগে দিক পাল্টে জালে জড়ায়। চ্যাম্পিয়ন্স লিগের ইতিহাসে এটি আট হাজারতম গোল।

নির্ধারিত সময়ের একেবারে শেষ মিনিটে ব্যবধান আরও বাড়িয়ে সব অনিশ্চয়তার ইতি টানেন মেসি। আলবার বাড়ানো বল ডামি করেন সুয়ারেস আর ডি-বক্সে ধরে বাঁ পায়ের শটে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন বার্সেলোনা অধিনায়ক।

এবারের আসরে মেসির এটি পঞ্চম গোল। ডাচ চ্যাম্পিয়ন পিএসভির বিপক্ষে হ্যাটট্রিক করেছিলেন তিনি। ক্লাব পর্যায়ে ইউরোপ সেরা প্রতিযোগিতার গ্রুপ পর্বে ৬৫ ম্যাচে মেসির এটি ৬৫তম গোল। আর সব মিলিয়ে তার গোল হলো ১০৫টি।

দুই ম্যাচে দুই জয়ে ৬ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে বার্সেলোনা। পিএসভিকে তাদেরই মাঠে ২-১ গোলে হারানো ইন্টার মিলান সমান ৬ পয়েন্ট নিয়ে গোল ব্যবধানে পিছিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com