রবিবার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ১১:০৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
মাধবপুরে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শহীদ মিনার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান গাজীপুরে পোশাক নারী শ্রমিক গণধর্ষণের শিকার ত্রিশালে রাস্তার দূর্ভোগে লালপুর-কৈতরবাড়ী ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা হলে অপরাধীদের মধ্যে ভীতিও থাকবে: কাদের ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড প্রস্তাব মন্ত্রিসভায় অনুমোদন পাহাড়পুর একিয়া ডায়াগনস্টিক সেন্টারে অভিনব কায়দায় রোগীর সাথে প্রতারণা নবাবগঞ্জে অজ্ঞাত পরিচয় নারীর লাশ উদ্ধার মাধবপুরে করোনার ভাইরাসের সুযোগে বালু খেকোদের রমরমা ব্যবসা নৌকায় ভোট দেয়ার অপরাধে বিএনপি দলগতভাবেই এইসব অপকর্ম করেছিল -তথ্যমন্ত্রী বড়াইগ্রামে জোর পুর্বক ঘরবাড়ি ভাংচুর করে রাস্তা নির্মাণ

ঢাকা বিভাগে পণ্য পরিবহন ধর্মঘট চলছে

খবরের আলো রিপোর্ট :

 

সড়ক পরিবহন আইনে সংশোধনসহ ৭ দফা দাবি আদায়ে রোববার সকাল থেকেই ঢাকা বিভাগে পণ্য পরিবহন ধর্মঘট শুরু করেছে বাংলাদেশ পণ্য পরিবহন মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ।

এর আগে গতকাল শনিবার রাজধানী তেজগাঁও ট্রাক টার্মিনালে মালিক-শ্রমিকদের এক মহাসমাবেশে সংগঠনের নেতারা এ ঘোষণা দেন। তাদের সব দাবি মেনে নেওয়া হলে আগামীতে যেকোনো রাজনৈতিক পরিস্থিতিতে সরকারকে সহযোগিতা করার কথা জানান। ধর্মঘট চলাকালে ঢাকায় পণ্য পরিবহন না করারও ঘোষণা দেন তারা।

এদিকে, রাজধানীর ফুলবাড়িয়া বাস টার্মিনালে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন মালিক-শ্রমিক ঐক্য পরিষদের এক সমাবেশে ইলিয়াস কাঞ্চনকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করা হয়। সংসদের আগামী অধিবেশনে সড়ক আইনের কয়েকটি ধারা সংশোধনের দাবি জানানো হয়। একই দাবিতে শনিবার পৃথক দুই স্থানে এ দুটি সমাবেশ অনুষ্ঠিত হলো।

জাতীয় সংসদে পাস হওয়া সড়ক পরিবহন আইন সংশোধনসহ সাত দফা দাবি আদায়ে বিভিন্ন আন্দোলন কর্মসূচি পালন করে আসছে বাংলাদেশ পণ্য পরিবহন মালিক শ্রমিক ঐক্য পরিষদ। এরই অংশ হিসেবে শনিবার তেজগাঁও টার্মিনালে মহাসমাবেশ করল সংগঠনটি। এতে দেশের বিভিন্ন জেলার পরিবহন নেতারা বক্তব্য দেন।

মহাসমাবেশে সভাপতির বক্তব্যে ঐক্য পরিষদের আহ্বায়ক মুকবুল আহমদ বলেন, মৃত্যু পরোয়ানা মাথায় নিয়ে শ্রমিকরা রাস্তায় পণ্যবাহী গাড়ি চালাতে পারবেন না। কোনো শ্রমিক ইচ্ছা করে রাস্তায় মানুষ মারে না। অনেক কারণে সড়ক দুর্ঘটনা হতে পারে। এর জন্য শুধু শ্রমিককে ফাঁসি বা জেল দেওয়ার বিধান মানব না। তিনি বলেন, ৭ দফা দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত পণ্যবাহী গাড়ি চলবে না।

ঐক্য পরিষদের সদস্য সচিব মো. তাজুল ইসলাম বলেন, পথে পথে শ্রমিকদের পুলিশ হয়রানি করছে, এগুলো বন্ধ করতে হবে। গত জাতীয় নির্বাচনের আগে জীবন বাজি রেখে মালিকরা গাড়ি নামিয়েছেন, শ্রমিকরা গাড়ি চালিয়েছেন। কিন্তু সড়ক আইনে ওই শ্রমিকদের ফাঁসি দেওয়ার কথা বলা হচ্ছে। এটা হতে পারে না। সমাবেশে বগুড়া আন্তজেলা ট্রাক শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি আবদুল মান্নান মন্ডল, নওগাঁ জেলা ট্রাক ট্যাংকলরি ও কাভার্ডভ্যান পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক শফিকুলসহ বিভিন্ন জেলার নেতারা ধর্মঘটের সময়ে ঢাকায় পণ্য আনবেন না বলে ঘোষণা দেন। মহাসমাবেশ পরিচালনা করেন মো. আবুল কাশেম।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com