রবিবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২১, ০৭:৪১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
অন্ন বস্ত্রের সমাধানের পর গৃহহীনদের মাথা গোঁজার ঠাঁই করে দিচ্ছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা -তথ্যমন্ত্রী   বিত্ত কখনো রাজনীতি নিয়ন্ত্রণ করতে পারেনা -তথ্যমন্ত্রী বাইডেনের শপথের সব আয়োজন সম্পন্ন, নজিরবিহীন নিরাপত্তা শিগগিরই ভ্যাকসিন বিতরণ কার্যক্রম শুরু : সংসদে প্রধানমন্ত্রী সিরাজগঞ্জে অবৈধ ৩টি ইটভাটায়  ভ্রাম্যমান আদালতে ১১ লক্ষ টাকা জরিমানা নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মকর্তা পরিষদের নির্বাচন ১৪ জানুয়ারি বেলকুচিতে আলোচিত পিতা-পুত্র হত্যা মামলার অন্যতম আসামী আটক স্পেনে তীব্র তুষারপাতে জনজীবন অচল: যান চলাচল বন্ধ সিরাজগঞ্জ সরকারি কলেজের শিক্ষিকা শিউলী মল্লিকা গ্রেফতার দোহারে অবৈধ ড্রেজার পাইপ ভেঙ্গে দিল প্রশাসন 

নানা আয়োজনে সাতক্ষীরার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বঙ্গবন্ধুর জন্ম বার্ষিকী পালিত

খবরের আলো :

 

 

শেখ আমিনুর হোসেন, সাতক্ষীরা ব্যুরো চীফ: সাতক্ষীরার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কেক কাটা, র‌্যালি ও আলোচনা সভা বেলুন-ফেস্টুন উড়ানোর মধ্য দিয়ে যথাযথ মর্যাদায় মহান স্বাধীনতার স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস-২০১৯ পালিত হয়েছে। রবিবার সকালে সাতক্ষীরা সরকারি শিশু পরিবার (বালক) এর আয়োজনে জেলা প্রশাসক এস.এম মোস্তফা কামালের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে এতিম শিশুদের নিয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকীর কেক কাটলেন সাতক্ষীরা সদর-০২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। এ সময় তিনি বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান শিশুদের খুব ভালবাসতেন বলে তিনি তার জন্মদিনে শিশুদের নিয়ে কেক কাটতেন। সেকারণে জননেত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনকে জাতীয় শিশু দিবস হিসেবে ঘোষণা করেছেন। যে মানুষটির জন্ম না হলে এই বাংলাদেশের জন্ম হতো না। সেই মহান নেতার আজ জন্মদিন। তাই এই দিনটিকে জাতীয় শিশু দিবস ঘোষণা করা হয়েছে। তার এ ঋণ বাঙালী জাতি কোনদিন শোধ করতে পারবেনা। বঙ্গবন্ধু শিশুদের খুব ভালবাসতেন। এতিম শিশুদের উদ্দেশ্যে বলেন, তোমরা তার আত্ম জীবনী পড়বে এবং তার দেশ প্রেম, আত্মত্যাগ ও স্বাধীনতার সঠিক ইতিহাস সম্পর্কে জ্ঞান অর্জন করবে। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) অনিন্দিতা রায়, জেলা সমাজসেবা অধিদফতরের উপ-পরিচালক দেবাশিষ সরদার, সহকারি পরিচালক হারুন অর রশিদ, জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদিকা পৌর কাউন্সিলর জ্যোৎস্না আরা, শহর সমাজসেবা অফিসার শেখ সহিদুর রহমান, সরকারি শিশু পরিবার (বালক) এর  উপ-তত্বাবধায়ক জামাল উদ্দিন প্রমুখ। সমগ্র অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন সমাজসেবা প্রবেশন অফিসার মো. মিজানুর রহমান।

একই দিন দুপুরে বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি প্রতিবন্ধী স্কুল প্রাঙ্গণে স্কুল পরিচালনা পরিষদের সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবক ডা. আলহাজ্ব আবুল কালাম বাবলা’র সভাপতিত্বে কেক কাটা ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। এসময় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদিকা জ্যোৎস্না আরা, বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি প্রতিবন্ধী স্কুলের প্রধান শিক্ষক ফারজিনা নাহিদ নিগার, সহকারী শিক্ষক হাবিবুল্লাহ হাবিব, আসাদুজ্জামান আসাদ, সাইফুর রহমান, ফারজানা সুলতানা, ফাহমিদা খাতুন, রাজমিতা মন্ডল, সুমি ও কামরুজ্জামান প্রমুখ। বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি প্রতিবন্ধী স্কুলের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে রবিবার দুপুরে সাতক্ষীরা সদরের ব্রহ্মরাজপুর ইউনিয়নের ডিবি ইউনাইটেড হাইস্কুলের আয়োজনে ব্রহ্মরাজপুর ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা এস.এম শহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে  ১০০তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস-২০১৯ এর ১০০ পাউন্ডের কেক কাটলেন সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা শিক্ষা অফিসার এস.এম আব্দুল্লাহ আল-মামুন, সদর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো. জাহিদুর রহমান, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রাণ বিষয়ক সম্পাদক স.ম জালাল উদ্দিন, ধুলিহর ইউপি চেয়ারম্যান মো. মিজানুর রহমান, ডিবি ইউনাইটেড হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক মো. মমিনুর রহমান মুকুল প্রমুখ। এসময় ডিবি ইউনাইটেড হাইস্কুলের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।
অন্যদিকে সাতক্ষীরার নবজীবন-এর উদ্দ্যোগে বর্নাঢ্য র‌্যালি, কেক কাটা, ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে বিভিন্ন প্রতিযোগিতা ও বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরন  সহ নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উদযাপন করা হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে রবিবার সকালে নবজীবন ইনস্টিটিউট ও পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের এর উদ্দ্যোগে একটি বর্নাঢ্য র‌্যালি বের করে। র‌্যালিটি শহরের গুরুত্বপুর্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে নবজীবন প্রাঙ্গনে গিয়ে শেষ হয় । পরে সকাল ১১টায় নবজীবন প্রাঙ্গনে আনন্দঘন পরিবেশে কেক কেটে জাতীর জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবসটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি সাতক্ষীরা সদর আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। নবজীবনের পরিচালক তারেকুজ্জামান খানের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদিকা জ্যোৎন্সা আরা, জেলা ক্রীড়া সংস্থার যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তৈয়েব হাসান বাবু, নবজীবন পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের অধ্যক্ষ শেখ রফিকুল ইসলাম প্রমুখ। আলোচনাসভা শেষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। পরে সকল অতিথি, শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী ও ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে কেক ও মিষ্টি বিতরণ করা হয়।
এ ছাড়াও সাতক্ষীরা সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা, স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে দিনটি উদ্যাপন করেছে। দিবসটি উদ্যাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সাতক্ষীরা সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজের অধ্যক্ষ মো. জিয়াউল হক’র সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন মোহাম্মদ ফেরদৌস আরেফিন, মাহবুবর রহমান, শিক্ষক মো. আনিসুর রহমান, রঞ্জন কুমার সরকার, শেখ আব্দুল আলিম, ধর্মদাশ সরকার, মোস্তফা বাকী বিল্লাহ, শংকর প্রসাদ দত্ত, বিষ্ণপদ পাল প্রমুখ। সমগ্র অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন মো.শরিফুল ইসলাম। অনুষ্ঠানে কলেজের শিক্ষক ও ছাত্র-ছাত্রীরা উপস্থিত ছিলেন।
এদিকে সাতক্ষীরা সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা, স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে দিনটি উদ্যাপন করা হয়েছে। দিবসটি উদ্যাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। আলোচনা সভায় বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও জেলা শিক্ষা অফিসার এস.এম আব্দুল্লাহ আল মামুন’র সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন সহকারি প্রধান শিক্ষক সামীমা ইসমত আরা, সহকারী শিক্ষক মো. আনিছুর রহমান, উম্মে হাবিবা, সহকারী শিক্ষক মো. হাবিবুল্লাহ, মো. ওয়ালিউর রহমান, মনিরুজ্জামান, দিপাসিন্ধু তরফদার প্রমুখ। আলোচনা সভা শেষে রচনা প্রতিযোগিতা, কবিতা আবৃত্তি, চিত্রাংকন ও কুইজ প্রতিযোগিতায় বিজয়ী শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। আলোচনা শেষে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের রুহের মাগফিরাত কামনা করা হয়। দোয়া ও মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা আবুল খায়ের। অনুষ্ঠানে সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও ছাত্র-ছাত্রীরা উপস্থিত ছিলেন।
অনুরূপভাবে সাতক্ষীরা সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে নানা অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা, স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি, হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে দিনটি উদ্যাপন করা হয়েছে। দিবসটি উদ্যাপন উপলক্ষে কেক কাটা, আলোচনা সভা, পুরস্কার বিতরণ ও দোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। আলোচনা সভায় প্রধান শিক্ষক সমরেশ কুমার দাশের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন সহকারি প্রধান শিক্ষক মো. আব্দুল হামিদ, ইয়াহিয়া ইকবাল, মো. সিরাজুল ইসলাম, মো. আবদুস ছবুর, গাজী মোমীন উদ্দিন প্রমুখ। আলোচনা সভা শেষে রচনা প্রতিযোগিতা, কবিতা আবৃত্তি, চিত্রাংকন ও কুইজ প্রতিযোগিতায় বিজয়ী শিক্ষার্থীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। আলোচনা শেষে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের রুহের মাগফিরাত কামনা করা হয়। অনুষ্ঠানে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও ছাত্র-ছাত্রীরা উপস্থিত ছিলেন।
অপরদিকে সাতক্ষীরার ব্রহ্মরাজপুর ডিবি গার্লস স্কুলে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন পালন করা হয়েছে।
কবিতায় ছন্দ গানে সুর আর ভাষণে মহান মুক্তিযুদ্ধের চেতনাদীপ্ত বারতা ছড়িয়ে সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ব্রহ্মরাজপুর ডিবি মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস পালিত হয়েছে।
রবিবার সকালে  স্কুলের হলরুমে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে মাল্যদানের মাধ্যমে কর্মসূচিতে সভাপতিত্ব করেন প্রধান শিক্ষক মো. এমাদুল ইসলাম দুলু। বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে স্বরচিত কবিতা আবৃত্তি করেন দশম শ্রেণির সুমাইয়া খাতুন। সঙ্গীত পরিবেশন করেন সুমাইয়া, ফারিহা, তনুশ্রী, রহিমা ও মিম। বক্তব্য রাখেন শিক্ষার্থীদের মধ্যে মাহিরা, জান্নাতুল মিম, ফারিহা ও কণিকা। বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণ স্বকন্ঠে পরিবেশন করেন নবম শ্রেণির মাকশকুরা পারভীন। কুইজ প্রতিযোগিতায় বিজয়ীরা হলেন ষষ্ঠ শ্রেণির ফারিহা আফরিন, সপ্তম শ্রেণির মাহিরা আফরিন ও অষ্টম শ্রেণির তমালিকা সরদার। সহকারি শিক্ষক এসএম শহীদুল ইসলামের পরিচালনায় শিক্ষকদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সহকারি প্রধান শিক্ষক অনুজিৎ কুমার মণ্ডল, সহকারি শিক্ষক হাফিজুল ইসলাম, অরুন কুমার মণ্ডল, দেবব্রত ঘোষ, অভিভাবক সদস্য নজরউদ্দিন সরদার।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com