শনিবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২১, ০৬:৩৪ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :

সিটি কর্পোরেশনের তৃতীয় শ্রেণীর কর্মচারী এখন কোটিপতি

খবরের আলো :

 

 

স্টাফ রিপোর্টার: ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের তৃতীয় শ্রেনীর কর্মচারী শাহনওয়াজ গাড়ী-বাড়ীর মালিক। সরেজমিনে গিয়ে জানা যায়, রাজধানীর কদতলী থানার পলাশপুর ইউনিয়নের পূর্ব দনিয়ার ৫নং রোড, ই ব্লককে ৬তলা বিশিষ্ট একটি অত্যাধুনিক বাড়ী যার নং ৯৮। একই এলাকার আরএস শপিং কমপ্লেক্সে মার্কেটে কিড্স এন্ড মম নামে রয়েছে একটি অত্যাধুনিক শো-রুম যার দোকান নং ১৪, নিচতলা। গ্রামের বাড়ী শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার ডিএম খালী ইউনিয়নের চর হোগলা মৌজায় (কার্তিকপুর ব্রীজের পূর্ব-দক্ষিণ পার্শ্বে) ২০ একর জমির উপর রয়েছে একটি মৎস্য প্রজেক্ট, যা বড় ভাই মনু সরকারসহ চার জন নিয়মিত দেখাশুনা করছেন। সখীপুর বাজারের উত্তর পার্শ্বে সরকার মার্কেটের বেশীর ভাগ দোকানই শাহনেওয়াজের পাশাপাশি বড় ভাই মনু সরকারের তত্বাবধানে রয়েছে একটি ইলেক্ট্রনিক্সের শো-রুম যার অর্থ যোগানদাতা শাহনেওয়াজ। নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকজন এলাকাবাসী জানান, অফিসের বাইরে প্রাইভেটকারে চলফেরা করেন, মোহাম্মদপুরের শেখের টেকে রয়েছে আরেকটি ৬তলা ভবন। রাজধানীর সুন্দরবন স্কোয়ার মার্কেটে রয়েছে একাধিক দোকান, প্রভাব খাটিয়ে এলাকায় ঝামেলাযুক্ত জমি ক্রয় করে মামলা মোকদ্দমার মাধ্যমে নিজেদের নামে রায় করিয়ে নেয় শাহনেওয়াজ ও তার ভাই মনু সরকার। জমি সংক্রান্ত বিষয়ে মামলা মোকদ্দমায় জড়িত ভাই মনু সরকার। এলাকায় শাহনেওয়াজ ও মনু সরকার মামলাবাজ হিসেবে পরিচিত। এ বিষয়ে জানতে চেয়ে শাহনেওয়াজের মুঠো ফোনে একাধীকবার ফোন দিলেও তাকে পাওয়া যায়নি। অবৈধ আয় ছাড়া শাহনেওয়াজের এতো কিছু করা সম্ভব না বলেও জানান এলাকাবাসী। শাহনেওয়াজ একজন তৃতীয় শ্রেনীর কর্মচারী হয়ে গাড়ী, বাড়ী, ভূমির মালিক কি করে সঠিক তদন্তে ব্যবস্থা নেওয়ার দাবী সচেতন মহলের। সুএ আমার দেশের সংবাদ ( নিউজ পোটাল)

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com