বৃহস্পতিবার, ২১ জানুয়ারী ২০২১, ০৭:০৬ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
বাইডেনের শপথের সব আয়োজন সম্পন্ন, নজিরবিহীন নিরাপত্তা শিগগিরই ভ্যাকসিন বিতরণ কার্যক্রম শুরু : সংসদে প্রধানমন্ত্রী সিরাজগঞ্জে অবৈধ ৩টি ইটভাটায়  ভ্রাম্যমান আদালতে ১১ লক্ষ টাকা জরিমানা নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মকর্তা পরিষদের নির্বাচন ১৪ জানুয়ারি বেলকুচিতে আলোচিত পিতা-পুত্র হত্যা মামলার অন্যতম আসামী আটক স্পেনে তীব্র তুষারপাতে জনজীবন অচল: যান চলাচল বন্ধ সিরাজগঞ্জ সরকারি কলেজের শিক্ষিকা শিউলী মল্লিকা গ্রেফতার দোহারে অবৈধ ড্রেজার পাইপ ভেঙ্গে দিল প্রশাসন  সালমান এফ রহমানের দোহার – নবাবগঞ্জে উন্মুক্ত হলো ওয়াজ মাহফিল বদলগাছীর কোলা ইউনিয়ন কে মডেল ইউনিয়ন গড়ার প্রত্যয়ে কাজ করছেন চেয়ারম্যান স্বপন

শ্রীপুরে প্রহলাদপুরে কাঠের নির্মিত কালভার্টটি দু ‘গ্রামের মানুষের একমাত্র ভরসা

খবরের আলো :

মহিউদ্দিন আহমেদ .শ্রীপুর,(গাজীপুর) প্রতিনিধি: গাজীপুরের শ্রীপুরে প্রহলাদপুর ইউনিয়নের খাইলাদি ও নানাইয়া দুটি গ্রাম। দু গ্রামে প্রায় ৯ হাজার লোকের বসবাস। এই দুটি গ্রামের সীমা রেখা বাগার বিল। বিলের ওপর দিয়ে দু’গ্রামের সহজে যোগাযোগ করার একটি মাত্র কাঁচা সড়ক। সড়কের মাঝ খানে বিলের থাকায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের অর্থায়নে দুই বছর পূর্বে কাঠের একটি কালর্ভাট নির্মাণ করা হয়েছিল। বর্তমানে কাঠের কালর্ভাটি ওপর দিয়ে যানবাহন ঝঁকি নিয়ে চলাচল করছে দু গ্রামের বাসিন্ধারা।

তবে কাঠের কালভাটটির প্রশস্ত কম হওয়ায় সড়কে কোন প্রকার যানবাহন চলাচল করতে পারে না। এতে কৃষি উপকরণসহ বিভিন্ন নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিষপত্র নিয়ে অনেক দূর্ভোগ পোহাতে হয় স্থানীয় গ্রাম বাসিন্দারের। কালভাটি এখন প্রায় ব্যবহারের অনোপযোগী হয়ে পড়েছে। এতে করে দু’গ্রামের প্রায় ৯ হাজার সাধারণ মানুষ ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করছে।

নানাইয়া গ্রামের কৃষক মো.ফজলু মিয়া বলেন, হাট বাজারে যেতে হলে বাগার বিল পাড়ি দিতে হয়। কৃষি জমির জন্য বস্তা ভর্তি সার ক্রয় করে ছোট্ট কাঠেঁর কালভাট দিয়ে নিয়ে আসা যায় না। চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে আমাদের। দু’টি গ্রামের যোগাযোগ করার এই রাস্তাটি প্রশস্ত করার জন্য বহুদিন ধরে জনপ্রতিনিধিদের কাছে আবেদন করেছি। কেউ কোন সাড়া দেয়নি। গ্রামের জীবন যাত্রার মান বারাতে হলে বাগার বিলের ওপর একটি ব্রিজ ও সড়কটি পাকা করে দেয়ার জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।

খাইলাদি গ্রামের বৃদ্ধা মহিলা আছিয়া বেগম বলেন, বহুকাল ধরে বাগার বিলের ওপর দিয়ে আমাদের চলাচল। মাটির রাস্তাটি বৃষ্টি হলে কাঁদা হয়ে যায়। তখন আর চলাচল করা যায় না।

প্রহলাদপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নূরুল হক আকন্দ বলেন, দু’গ্রামের যোগাযোগ ব্যবস্থার জন্য বাগার বিলের ওপর একটি কালর্ভাট ও সড়কটি প্রশস্ত করার জন্য উপজেলা প্রশাসনের কাছে লিখিত ভাবে জানিয়েছি। আশা করছি খুব তারাতাড়ি এ সড়কটি প্রশস্ত করে একটি বড় কালর্ভাট নির্মান হবে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) রেহেনা আকতার বলেন, পরবর্তী বাজেট পেলে শীঘ্রই দু’গ্রামের মানুষের চলাচলের জন্য একটি ব্রীজ র্নিমান করা হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com