মঙ্গলবার, ২০ অক্টোবর ২০২০, ১১:২৪ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :

চাঁদপুর শাহরাস্তিতে প্রবাসী স্ত্রীর আত্মহত্যা-থানায় মামলা

খবরের আলো :

 

 

মোঃ জসীম উদ্দীন চৌধুরীঃ চাঁদপুর শাহরাস্তিতে সৌদি প্রবাসী তৌকির আহমেদের স্ত্রী জান্নাতুন নাঈমের গোসল করার দৃশ্য হাছান নামের বখাটে গোপনে দেখে ফেলে। ক্ষোভ আর লজ্জায় গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহনন করেছেন তরুণী ওই বধূ জান্নাতুন নাঈম। এ ঘটনায় বখাটে হাছানকে আসামি করে নিহত জান্নাতুল নাঈমের শাশুড়ি পারুল বেগম মামলা দায়ের করেছে।

ঘটনার বিবরণে জানা যায়, শাহরাস্তি উপজেলার ওয়ারুক পাটওয়ারী বাড়ির ছেলে তৌকির আহমেদ প্রায় ৪ বছর পূর্বে প্রেম করে বিয়ে করেন একই ইউনিয়নের রাডা গ্রামের মশিউর রহমানের মেয়ে জান্নাতুন নাঈমকে। বিয়ের কয়েক বছর পরে জীবিকার তাগিদে সৌদি চলে যান তৌকির। জান্নাত বিয়ের পরেও কলেজে পড়াশোনা করছিলেন। ঈদের আগের দিন গত রবিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে জান্নাতুল নাঈমের শাশুড়ি পারুল বেগম হাজীগঞ্জ বাজারে কেনাকাটা করতে যান। পুত্রবধু জান্নাত গোসলখানায় গাসল করতে যান। তখন একই বাড়ির হারুন পাটওয়ারীর বখাটে ছেলে হাছান দেয়ালের ফাঁক দিয়ে জান্নাতের গোসলের দৃশ্য দেখে। এর পƒর্বেও বখাটে হাছান জান্নাতকে কয়েকবার কুপ্রস্তাব দিয়েছিলো বলে জানান জান্নাতের শাশুড়ি। পরে বখাটে হাছান গোসলের সময় তার শরীরের সব দেখে ফেলেছে বলে জানিয়ে জান্নাতকে বিভিন্ন বাজে কথা বলে। ঘটনাটি সঙ্গে সঙ্গে সে এলাকার আরো কয়েকজন বখাটেকেও জানায়। বিষযটি জান্নাতের কানে গেলে জান্নাত তার সৌদি প্রবাসি স্বামী তৌকিরকে বিষয়টি অবহিত করেন।

জান্নাত স্বামীকে বলেন, “তোমাদের বাড়ির হাছান ছেলেটি খুবই নোংরা ও খারাপ। দেশে এসে তার
বিচার করো।” এ কথা বলেই লাইন কেটে দেয় স্ত্রী। কিছুক্ষণ পরে নিজ ঘরের আডার সাথে ফাঁস দিয়ে
আত্মহত্যা করে জান্নাত। এরপর সৌদি আরব থেকে তৌকির কয়েকবার ফোন করলেও ফোন রিসিভ না হওযা সে তার চাচিকে ফোন করে। চাচি তার ১১ বছরের মেয়ে সুরভীকে ঘরে পাঠিয়ে জান্নাতকে ডেকে আনতে বলে। সুরভী কক্ষে গিয়ে দেখে জান্নাত ফাঁসিতে ঝুলে রয়েছে। তার চিৎকারে বাড়ির অন্যরা মিলে তাড়াতাড়ি তাকে হাজীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার জান্নাতকে মৃত ঘোষণা করেন।

শাহরাস্তি থানার এসআই মোজাম্মেল জান্নাতের মৃতদেহ উদ্ধার করে। চাঁদপুর মর্গে ময়না তদন্ত শেষে ঈদের দিন বাদ আসর নিহত জান্নাতের জানাযা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। জান্নাতের শাশুড়ি পারুল বেগম জানান, বখাটে,হাসান আমার ছেলের স্ত্রীকে বিভিন্ন সময় কুপ্রস্তাব দিয়েছিলো।
শাহরাস্তি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ শাহআলম দৈনিক খবরের আলোকে জানান, এ ঘটনায় নিহত জান্নাতুল নাঈমের শাশুড়ি পারুল বেগম বখাটে হাছানকে অভিযুক্ত করে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়েল,করেছে। অভিযুক্তকে ধরার জন্য অভিযান চলছে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com