শুক্রবার, ১৬ অক্টোবর ২০২০, ০৪:০৯ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :

অফিসে ঘুম ঘুম ভাব, কি করবেন?

খবরের আলো  ডেস্ক :

 

 

শনিবার, ১৪ সেপ্টেম্বর : মাত্র অফিস শুরু করলেন। কিন্তু কাজের মধ্যেই হঠাৎ প্রচণ্ড ঘুম ঘুম ভাব। যেন কাজের টেবিলে মাথা নুয়ে দিয়ে একটা ঘুম দিতে পারলে আহ কি আরামই না হতো। কিন্তু অফিস বলে কথা, আরামের কারণে আপনার চাকরিটাই হারাতে পারেন।

চাকরি বাঁচাতে আপনাকে ঘুমকে দূর করতেই হবে। কিন্তু কীভাবে কাটাবেন এই অস্বস্তিকর অবস্থা? ঘুম কাটানোর দাওয়াই কি? এমন কিছু উপায় আছে, যা ঘুম কাটাতে সাহায্য করবে।

১. দুপুরে অল্প খাবার খান: আমাদের দেশে দুপুরবেলা ভারী খাবার খাওয়ার চল আছে। অফিসে থাকলেও এর ব্যতিক্রম হয় না। এর ফলে খাওয়ার পরপরই ঝিমুনি ধরে, ঘুম চলে আসে। তাই খুব সামান্য পরিমাণে পুষ্টিকর খাবার খাওয়ার চেষ্টা করুন। এতে শরীর সুস্থ থাকবে এবং ঘুমও আসবে না।

২. বিরক্তিকর কাজগুলো কিছুক্ষণ এড়িয়ে চলুন: খাবার খাওয়ার পর বিরক্তিকর কাজগুলো এড়িয়ে চলুন। কারণ, বিরক্তিকর কাজগুলো মানসিকভাবে কাজের প্রতি অনীহা তৈরি করে, যার ফলে কাজ করার উৎসাহ হারিয়ে যায় এবং বারবার ঘুম পায়। এ সময়টাতে আপনার যে কাজ করতে ভালো লাগে, সেরকম কাজ করুন। এতে কাজে মন বসবে এবং ঘুম ঘুম ভাব চলে যাবে।

৩. সহকর্মীদের সঙ্গে কিছুটা সময় কাটান: কাজের ফাঁকে কিছুটা সময় সহকর্মীদের সঙ্গে কাটান। চা খাওয়ার অবসরে বা দুপুরে খাওয়ার সময় গল্প করুন। শেষ কী সিনেমা দেখলেন, সেটা নিয়ে আলোচনা করুন; কিন্তু একেবারেই অফিসের কথা বা কাজের কথা তুলবেন না।

৪. হাঁটাহাটি করুন: টানা এক জায়গায় বসে থাকলে ঘুম তো পাবেই। একটু হাঁটাহাঁটি করে নিন। ৫ মিনিট হাঁটলেই ঘুম পালাবে।

৫. জল খান: এক নিঃশ্বাসে শেষ করুন এক গ্লাস জল। এতেই দেখবেন ঘুম ঘুম ভাব একটু কম হবে। চোখে মুখেও জল দিয়ে নিতে পারেন। বেশ তরতাজা ভাব আসবে।

৬. চা বা কফি নয়: দুপুরের খাবার পরেই চা বা কফি পান করবেন না। খুব নেশা থাকলে অন্তত ৩০ মিনিট বা ১ ঘণ্টা পরে চা বা কফির অর্ডার দিন।

৭. গ্রিন টি খান: কাজের ফাঁকে এক কাপ গ্রিন টি খেতে পারেন। এতে ঘুমের রেশ কেটে যাবে এবং নতুন করে কাজ করার শক্তি পাবেন।

৮. চিনি এড়িয়ে চলুন: চিনি অথবা চিনিজাতীয় যে কোনও খাবারের কারণে বেশি ঘুম পায়। তাই অফিসে যাওয়ার পর এ ধরনের খাবার থেকে দূরে থাকুন। তাহলে ঘুম আসার সম্ভাবনা কমবে।

৯. এক ঘণ্টা অন্তর মুখ ধোয়ার চেষ্টা করুন: সারা দিন সতেজ ও কর্মক্ষম থাকার জন্য অন্তত এক ঘণ্টা পর পর মুখ ধুয়ে ফেলুন। এতে ঘুমের ভাব অনেকটা দূর হবে। ত্বকও ভালো থাকবে, আবার সতেজও লাগবে।

১০. ঘরে জোরাল আলো জ্বালান: আপনার অফিস রুমটিতে যদি আবছা অন্ধকার থাকে, তবে ঘুম তো আসবেই। আলো জ্বালুন বা আলো আসার ব্যবস্থা করুন। সূর্যের উজ্জ্বল আলো অফিস ঘরে ঢুকলে ঘুম এমনিও আসবে না।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com