সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০, ০৭:৫৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
মাধবপুরে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শহীদ মিনার উদ্বোধনী অনুষ্ঠান গাজীপুরে পোশাক নারী শ্রমিক গণধর্ষণের শিকার ত্রিশালে রাস্তার দূর্ভোগে লালপুর-কৈতরবাড়ী ধর্ষণের সর্বোচ্চ সাজা হলে অপরাধীদের মধ্যে ভীতিও থাকবে: কাদের ধর্ষণের শাস্তি মৃত্যুদণ্ড প্রস্তাব মন্ত্রিসভায় অনুমোদন পাহাড়পুর একিয়া ডায়াগনস্টিক সেন্টারে অভিনব কায়দায় রোগীর সাথে প্রতারণা নবাবগঞ্জে অজ্ঞাত পরিচয় নারীর লাশ উদ্ধার মাধবপুরে করোনার ভাইরাসের সুযোগে বালু খেকোদের রমরমা ব্যবসা নৌকায় ভোট দেয়ার অপরাধে বিএনপি দলগতভাবেই এইসব অপকর্ম করেছিল -তথ্যমন্ত্রী বড়াইগ্রামে জোর পুর্বক ঘরবাড়ি ভাংচুর করে রাস্তা নির্মাণ

ইনজুরিতে রশিদ খান, ফাইনালে অনিশ্চিত!

খবরের আলো রিপোটঃ

 

 

রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর : চলমান ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের শেষ ম্যাচে অজেয় আফগানিস্তানকেই হারিয়েছে বাংলাদেশ। শনিবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে রশিদের এক ওভারে ১৮ রান নিয়ে জয়ের পথ সুগম করেন সাকিব আল হাসান। তবে তার আগেই চোটে পড়ে মাঠের বাইরে যান রশিদ খান। আর এতেই গুঞ্জন, ফাইনালেও খেলা হচ্ছে না তার।

সেদিন ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে আসেননি আফগান ক্যাপ্টেন। আফগানিস্তানের প্রতিনিধি হয়ে সংবাদ সম্মেলনে আসেন অভিষিক্ত পেসার নাভিন উল হক। চার ওভারে মাত্র ২০ রান খরচায় ২ উইকেট তুলে নেন এই আফগান অভিষিক্ত। মনে রাখার মত অভিষেকই বলা যায় এই তরুণ পেসারের জন্য।

কিন্তু ক্যারিয়ারের প্রথম ম্যাচেই সংবাদ সম্মেলনে এসে নিজের এমন অভিষেক নিয়ে যেমন প্রশ্নের সম্মুখীন হন নাভিন। তবে সেসব ছাপিয়ে বেশি প্রশ্নের সম্মুখীন হন দলপতি রশিদ খানকে নিয়ে। কেন আসেননি রশিদ খান! তবে কি ফাইনালে অনিশ্চিত রশিদ!

বাংলাদেশের ইনিংসের তখন অষ্টম ওভারের শেষ বল, দলীয় সংগ্রহ ৩৯/২। এমনই সময় মোহাম্মদ নবীর বলে কাট করে রানের জন্য দৌড় শুরু করেন মুশফিকুর রহিম। মিডউইকেটে ফিল্ডিং করা রশিদ খান বলের পেছনে পেছনে দৌড় দেন। কিছু দূর এগোনোর পরই বাঁ পায়ের মাংশ পেশিতে টান লাগে তার।

হাঁটতে না পেরে মাঠেই লুটিয়ে পড়েন আফগান অধিনায়ক। মিনিট কয়েক পর উঠে দাঁড়ালেও ব্যথা অনুভব করায় ফিজিওর সঙ্গে মাঠ ছাড়েন এ আফগান তারকা। কিছু সময়ের ব্যবধানে ১২তম ওভার শুরুর আগেই ফের মাঠে নামেন তিনি।

শনিবার চোট আক্রান্ত হওয়ার পরও ফের মাঠে নামায় অনেকেই অবাক হয়েছেন। ওই ম্যাচের ১২তম ওভারের সময় ইনজুরি থেকে ফিরে খুড়িয়ে ওভার করেও সাফল্যের দেখা পান রশিদ খান। মাহমুদুল্লাহকে লেগ বিফোরের ফাঁদে ফেলে সাজঘরে ফেরান। এরপর সিরিজে বাংলাদেশ দলের উদীয়মান ব্যাটসম্যান আফিফকে বোল্ড করেন।

তবে পরে নিজের তৃতীয় ওভারে এসে অবশ্য বিফল হন রশিদ খান। টাইগার অধিনায়ক সাকিব ওই ওভারে একটি ছয় ও দুটি চার মেরে ফের ম্যাচ বের করে নেন।

আর এ কারণেই চিন্তার মেঘ পিছু ছাড়েনি মোহাম্মদ নাবীদের। কেননা রশিদ খান যে হ্যামস্ট্রিং ইনজুরিতে পড়েছেন। যে চোটের কারণে আগামী মঙ্গলবার মিরপুরে টি-২০ ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনাল খেলা অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে অন্যতম সেরা এই লেগীর।

আসলে এক রশিদ খানের দলে না থাকাটা বেশ বড় সুযোগ তৈরি করে প্রতিপক্ষের জন্য। তবে রশিদকে নিয়ে এখনই কিছু বলতে পারছেনা দলের ম্যানেজার নাজিম জার আব্দুর রহিম জাই। এ প্রসঙ্গে তিনি জানান, ‘ফিজিও দেখছে তাকে। দুই–তিন দিন সময় আছে মাঝে। দেখা যাক কী হয়। এখনই বলতে পারছি না সে খেলতে পারবে কি পারবে না।’

এদিকে, ফাইনালের আগে হাতে সময় আছে গোটা দুই দিন। এই সময়ে পুরো ফিট হওয়ার ব্যাপারে আশাবাদী আফগান ম্যানেজার নাজিম জার আব্দুর রহিম জাই।

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে পেসার নাভিন উল হককে করা প্রশ্নের জবাব দিতে গিয়ে আফগান ম্যানেজার বলেন, ‘সে ভালো করছিল, দেখি কি হয়। আমাদের হাতে আরও দুই-তিনদিন সময় আছে পুনর্বাসন প্রক্রিয়া চালানোর। আশা করছি চোট গুরুতর নয়। সে আমাদের অধিনায়ক ও সেরা খেলোয়াড়। আগামীকাল (আজ) আমরা তাকে পর্যবেক্ষণ করবো তারপর সিদ্ধান্ত নিব।’

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com