শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:০১ অপরাহ্ন

টাকা ফেরৎ চাওয়ায় ইউপি সদস্য কর্তৃক মারপিটের ঘটনায় সংবাদ সম্মলন

খবরের আলো :

 

শেখ আমিনুর হোসেন,সাতক্ষীরা ব্যুরো চীফ: সাতক্ষীরার কালিগঞ্জের বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের পারুলগাছা এলাকায় পল্লী বিদ্যুৎ’র সংযোগ দেওয়ার নামে ঘুষ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে এক ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে। একইসাথে ঘুষের টাকা ফেরৎ চাওয়ায় জীবন নাসের হুমকির প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবে এক জনার্কীন সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে পাঠ করেন কালিগঞ্জের পারুলগাছা এলাকার সামছুর মোড়লের ছেলে মো শিমুল মোড়ল।
লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, আমি একজন কৃষক। ২০১৭ সালের নভেম্বর মাসে আমিসহ অত্র গ্রামের ৪০টি পরিবার বাড়ি বাড়ি বিদ্যুৎ সংযোগ নেওয়ার জন্য বিষ্ণুপুর ইউনিয়নের গনি মোড়লের পুত্র ইউপি সদস্য আফছার একই গ্রামের মাজেদ গাজির ছেলে শাহাজান গাজি, মোহিদ্র সরদারের ছেলে দীপঙ্কর সরদার, মৃত মনোরঞ্জন মন্ডলের ছেলে তাপস মন্ডল এর কাছে বাড়ি পিছু মিটার নেওয়ার জন্য ৬০০০ ছয় হাজার টাকা করে দেই। টাকা নেওয়ার সময় তারা ২০১৮ সালের রোজার ঈদের আগে বাড়ি বাড়ি মিটার লাগিয়ে বিদ্যুৎ সংযোগ দেওয়ার আশ্বাস দেয়। নির্ধারিত সময়ের পর তিন মাস পেরিয়ে গেলেও বিদ্যুত সংযোগ না পাওয়ায় আমিসহ ৩৮ জন পাটকলঘাটা পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের ম্যানেজার বরাবর ২০/৯/১৮ তারিখে অভিযাগ দায়ের করি। বিষয়টি জানতে পেরে আফছার মেম্বরসহ ঘুষ গ্রহীতারা আমাদেরকে বিভিন্ন ভাবে হুমকি ধামকি দেয়।
তিনি আরও বলেন,পল্লী বিদ্যুতর জোনাল ম্যানেজারের কাছ থেকে কোন প্রতিকার না পাওয়ায় আমরা ভূক্তভোগী ৩৮ জন সদস্য কালিগঞ্জ উপজলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে একটি অভিযোগ দায়ের করি ৩০/৯/১৮ তারিখে। গত ২৩/১০/১৮ তারিখে ৩৭ জনের মিটার দেওয়া হলেও আমি, ইদ্রিস ও সখিনার সংযোগ দেওয়া হয়নি। আমরা মেম্বর আফছার উদ্দিন মোড়লের কাছ জানতে চাইলে তিনি হুমকি দিয়েই বলেন যারা তাদের পাটকেলঘাটা পল্লী বিদ্যুত ও ইউএনও‘র কাছে পাঠায়াছিল তাদের কাছে যা। গত ২৯/১০/১৮ তারিখ সোমবার সন্ধা ৭ টার দিকে আমি পারুলগাছা বাজার আসলে মেম্বর আফছার সেখানে আসে। আমি তার কাছে বিদ্যুত সংযাগ দেওয়া ছয় হাজার টাকা ফেরৎ চাই। এসময় সে টাকা নেওয়ার কথা অস্বিকার করে আমাকে এলোপাতাড়ি কিল, ঘুষি ও লাথি মেরে জখম করে। পাশে অবস্থান  করা মো, ইসলাম গাজী, ইদ্রিস, মান্নানসহ কয়েক জন প্রতিবাদ করায় আফছার মোটরসাইকেলে দ্রুত চলে যায়। এসময় স্হানীয়রা আমাকে এক ডাক্তারের কাছে নিয়ে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়।
এব্যাপারে তিনি ঘুষখোর আফছার মেম্বরের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের জন্যে পুলিশ সুপারসহ পুলিশর উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com