শনিবার, ১৭ এপ্রিল ২০২১, ১১:৪৭ পূর্বাহ্ন

মেয়ে সহপাঠীকে ‘পছন্দ’ করায় ৮ বছরের ছাত্রীকে স্কুল থেকে বহিষ্কার!

যুক্তরাষ্ট্রের ওকলাহোমা। ২০১৪ সালের ৬ অক্টোবর থেকে এখানে সমলিঙ্গের বিয়েতে আইনি বৈধটা দেওয়া হয়েছে। কিন্তু এখানেরই শহর ওবাসোতে এক নিন্দনীয় ঘটনা ঘটল। ক্লাসের এক মেয়ে বন্ধুকে পছন্দ করার জন্য স্কুল থেকে বহিষ্কৃত হতে হল আট ৮ বছরের এক শিশু ছাত্রীকে। মেয়েটি জানায়, তার সহপাঠীকে বিশেষভাবে পছন্দ করে সে। এরপরই স্কুল কর্তৃপক্ষের তরফে এই পদক্ষেপ গ্রহণ করা হল।

ওবাসোর রিজয়েস ক্রিশ্চিয়ান স্কুল শুধুমাত্র ওই ছাত্রীকে নয়, তার ভাইকেও বের করে দিয়েছে। ঘটনার পরপরই ক্লো নামের ওই ছাত্রীর মা ডেলেনি সেলটনকেও ডেকে পাঠানো হয়। এক সাক্ষাৎকারে ডেলেনি জানান, খেলার মাঠে এক মেয়ে বন্ধুকে নিজের পছন্দের কথা জানায় তার মেয়ে ক্লো। দ্রুত তাকে খেলার মাঠ থেকে বের করে দেওয়া হয়। এরপর তার মেয়েকে স্কুলের প্রিন্সিপাল অফিসে নিয়ে যাওয়া হয়।

ওই ছাত্রীর মায়ের কথায়, তার মেয়ের সঙ্গে রীতিমতো জেরা শুরু হয়। একসময়ে স্কুলের ভাইস প্রিন্সিপাল বলে ওঠেন, এটা না কি অন্যায়। কারণ মেয়েদের সঙ্গে একমাত্র পুরুষেরই সম্পর্ক হতে পারে। পুরুষের থেকেই মেয়েদের সন্তান হতে পারে। এর বাইরে অন্য কিছু নিয়ম বিরুদ্ধ।

ডেলেনি সেলটনকেও একই কথা জিজ্ঞাসা করা হয়। স্কুলের ভাইস প্রিন্সিপাল তাকে জিজ্ঞাসা করেন, মেয়ে হয়ে অন্য এক মেয়েকে পছন্দ করার বিষয়টিকে তিনি কীভাবে দেখেন? বেশ কিছুক্ষণ এ নিয়ে তর্ক-বিতর্ক চলতে থাকে। শেষ পর্যন্ত সেলটন পরিবারের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করে রিজয়েস ক্রিশ্চিয়ান স্কুল। ওই ছাত্রী ও তার ভাইকে স্কুল থেকে বহিষ্কার করা হয়। তবে সমাধানের জন্য আপ্রাণ চেষ্টা করেন ডেলেনি। স্কুল সুপারিনটেনডেন্ট জোয়েল পেপিনের কাছেও আবেদন জানান তিনি। কিন্তু স্কুল কর্তৃপক্ষের তরফে কোনও সাড়া মেলেনি।

সূত্রে খবর, এ নিয়ে প্রকাশ্যে কোনও মন্তব্য করতে চায়নি স্কুল কর্তৃপক্ষ। তবে ঘটনার তীব্র নিন্দা করে সরব হয়েছেন সমাজের নানা স্তরের মানুষ। স্কুলের অনেক সাবেক ছাত্র-ছাত্রীরাও তাদের নানা তিক্ত অভিজ্ঞতার কথা জানিয়েছে। ক্লোর সমর্থনে ইতিমধ্যেই ফেসবুকে নানা ক্যাম্পেইন ও পোস্টের ছড়াছড়ি। তবে টনক নড়েনি সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com