বুধবার, ১২ মে ২০২১, ০৫:২৮ অপরাহ্ন

স্পিডবোটের চালক আটক, ৮ জনের পরিচয় মিলেছে

মাসুম মাদবর

মাদারীপুরের শিবচরের বাংলাবাজারে নৌ দুর্ঘটনায় ২৬ জনের মরদেহ উদ্ধারের ঘটনায় চালক মো. শাহ আলমকে আটক করা হয়েছে।

সোমবার (০৩ এপ্রিল) বিকেলে তাকে আটকের পর শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পুলিশ হেফাজতে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। শিবচর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিরাজ হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে নিহত ২৬ জনের মধ্যে এখন পর্যন্ত ৮ জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। তারা হলেন- কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলার মাইখারকান্দি এলাকার কাওসার হোসেন (৪০) ও রুহুল আমিন (৩৫), ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গা উপজেলার মাইগ্রো এলাকার আরজু সরদার (৪০) ও তাঁর দেড় বছর বয়সী ছেলে ইয়ামিন, মাদারীপুরের রাজৈর শঙ্কারদি এলাকার তাহের মীর (৩০), তিতাস উপজেলার ইসুবপুর এলাকার জিয়াউর রহমান (২৮), মুন্সিগঞ্জের সাতপাড় এলাকার সাগর শেখ (৩৭), পিরোজপুরের ভান্ডারিয়া উপজেলার পসারিয়াবুনিয়া এলাকার জনি অধিকারী (২৬)। তাঁদের লাশ স্বজনদের কাজে হস্তান্তর করা হয়েছে।

এর আগে সোমবার (৩ মে) ভোরে বাংলাবাজার ঘাট এলাকায় থাকা বালুবোঝাই বাল্কহেডের সঙ্গে স্পিডবোটের ধাক্কায় ২৬ জন যাত্রী নিহত হন। এ দুর্ঘটনায় এখন পর্যন্ত অনেকে নিখোঁজ রয়েছেন।

শিবচরের বাংলাবাজার ফেরিঘাটের ট্রাফিক পরিদর্শক আশিকুর রহমান জানান, ভোরে মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া থেকে ৩০-৩৫ জন যাত্রী নিয়ে মাদারীপুরের শিবচরের বাংলাবাজারের দিকে আসছিল স্পিডবোটটি। ঘাটের কাছাকাছি এলে নোঙর করা বালুবোঝাই একটি বাল্কহেডে ধাক্কা দিয়ে স্পিডবোটটি উল্টে যায়। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস ও নৌপুলিশ উদ্ধার অভিযান শুরু করে। ঘটনাস্থল থেকে এখন পর্যন্ত ২৪ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। এছাড়া জীবিত উদ্ধার করা ৬ জনকে হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে আরও দুজন মারা যান।

এ ঘটনায় ৬ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়। স্থানীয় সরকার অধিদফতরের উপপরিচালক আজহারুল ইসলামকে প্রধান করে এ কমিটি গঠন করে জেলা প্রশাসন। একই সঙ্গে আগামী ৩ কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া নিহতের প্রত্যেকের পরিবারকে ২০ হাজার টাকা করে দেওয়া ঘোষণা দিয়েছেন জেলা প্রশাসক ডা. রহিমা খাতুন।

তিনি জানান, আহতদের চিকিৎসার ব্যয় বহন করা হবে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2018 Dailykhaboreralo.Com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com